ব্রাহ্মণবাড়ীয়া জেলা পরিচতি

ব্রাহ্মণবাড়ীয়া জেলা বাংলাদেশের দক্ষিণ পূর্বাঞ্চলের চট্টগ্রাম বিভাগের একটি প্রশাসনিক অঞ্চল। একে বাংলাদেশের সাংস্কৃতিক রাজধানী বলা হয়।
ভৌগলিক অবস্থান ও আয়তনঃ ব্রাহ্মণবাড়ীয়া জেলার আয়তন ১৯২৭.১১ বর্গ কিলোমিটার। এর উত্তরে হবিগঞ্জ ও কিশোরগঞ্জ জেলা। দক্ষিণে কুমিল্লা জেলা, পূর্বে ভারতের ত্রিপুরা রাজ্য এবং পশ্চিমে নরসিংদী ও কিশোরগঞ্জ জেলার অবস্থান। এর পাশ দিয়ে বয়ে গেছে তিতাস ও মেঘনা নদী। এছাড়া শহরের পাশে রয়েছে এন্ডারসন খাল।

ইতিহাসঃ

১৯৮৪ সালে ব্রাহ্মণবাড়ীয়া জেলা স্তরে উন্নীত হয়। তার আগে এটি কুমিল্লা জেলার মহকুমা ছিল। চট্টগ্রামের সর্বউত্তরের এই জেলা এক সময় সমতট জনপদের একটি অংশ ছিল। ইসা খাঁ বাঙলার প্রথম এবং অস্থায়ী রাজধানী স্থাপন করেন সরাইলে। ১৯৬৩ সালের বৃটিশ আইনে কুমিল্লার তিনটি সাব-ডিভিশন থেকে ব্রাহ্মণবাড়ীয়া মহকুমা সৃষ্টি হয়। ১৯৬৮ সালে ব্রাহ্মণবাড়ীয়া পৌর শহর হিসেবে প্রতষ্ঠিত হয়।
মুঘল আমলে মুসলিন কাপড় তৈরীর জন্য বিখ্যাত ছিল ব্রাহ্মণবাড়ীয়া।
১৯২১ সালে সমগ্র মুসলিম লীগের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয় ব্রাহ্মণবাড়ীয়ার সৈয়দ শামসুল হুদা (১৮৬২-১৯২২) এবং ব্যারিস্টার আব্দুর রসুল (১৯৭৪-১৯১৭) ছিলেন কংগ্রেস তথা ভারত বর্ষের প্রথম সারির একজন নেতা। উল্লাসকর দত্ত্ (১৮৮৫-১৯৬৫), সুনীতি চৌধুরী, শান্তি ঘোষ, গোপাল দেব, বীরমুক্তিযোদ্ধা বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ ও জ্ঞান সাধক ডঃ এম. এ. রহমানের মত অনেক ত্যাগী ও মহান নেতাদের জন্ম দিয়েছে এই ব্রাহ্মণবাড়ীয়া।
নামকরণঃ

লোকমুখে শোনা যায় যে সেন বংশের রাজত্বকালে এই অঞ্চলে অভিজাত ব্রাহ্মণকুলের বড়ই অভাব ছিল। পূজা অর্চনার জন্য সেন বংশের শেষ রাজা লক্ষণ সেন আদিসুর কন্যকুঞ্জ থেকে কয়েকটি ব্রাহ্মণ পরিবারকে কারনে এ জেলার নামকারন ব্রাহ্মণবাড়ীয়া হয় বলে অনেকে বিশ্বাস করেন। অন্য একটি মতানুসারে দিল্লী থেকে আগত ইসলাম ধর্ম প্রচারক শাহ সুফী হযরত কাজী মাহমুদ শাহ শহর থেকে উল্লেখিত ব্রাহ্মণ পরিবার সমূহকে বেরিয়ে যাবার নির্দেশ প্রদান করেন, যা থেকে ব্রাহ্মণবাড়ীয়া নামের
উৎপত্তি হয়েছে বলে মনে করা হয়। ব্রাহ্মণবাড়ীয়ার আঞ্চলিক উচ্চারণ “বাওনবাইরা” ব্রাহ্মণবাড়ীয়ার সংক্ষিপ্ত নাম ‘বি-বাড়িয়া’ বহুল প্রচলিত যার ফলে ব্রাহ্মণবাড়ীয়ার ঐতিহ্য ক্ষুন্ন হচ্ছে। এ অবস্থার উত্তরনে ২০১১ সালে ব্রাহ্মণবাড়ীয়া জেলা প্রশাসন হতে সকল ক্ষেত্রে বি-বাড়িয়ার পরিবর্তে “ব্রাহ্মণবাড়ীয়া” লেখার প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়।
প্রশাসনিক বিন্যাসঃ  ব্রাহ্মণবাড়ীয়া জেলা ৯টি উপজেলা ১০০টি ইউনিয়ন ও ৪টি পৌরসভায় বিভক্ত।